আকাশ বার্তা
Next Prev

বিধিনিষেধ মেনেই চালু হল জেলার বহু প্রাথমিক স্কুল, কোথাও বা মাঠে, কোথাও স্কুলের বারান্দায়

বিধিনিষেধ মেনেই চালু হল জেলার বহু প্রাথমিক স্কুল, কোথাও বা মাঠে, কোথাও স্কুলের বারান্দায়

আকাশ বার্তা অনলাইন ডেস্ক - দীর্ঘ প্রায় দুই বছর ধরে চলতে থাকা করোনা অতিমারীরর প্রভাবে যেমন সাধারণ মানুষের রুজি রুটিতে টান পড়েছে ঠিক একইভাবে করোনার মারাত্মক প্রভাব পড়েছে শিক্ষাক্ষেত্রেও। দেশে করোনা প্রবেশের প্রথম থেকেই সমস্ত কিছুর মতোই বন্ধ রাখা হয়েছিল স্কুল, কলেজ গুলিও। তবে এর পরবর্তী সময়ে ধাপে ধাপে সমস্ত কিছুতে ছার দেওয়া হলেও শিক্ষাক্ষেত্রে সেই ছার মেলেনি।

বরং দীর্ঘদিন স্কুল কলেজ বন্ধ রাখার পর সম্প্রতি নবম থেকে দ্বাদশ এবং কলেজের পঠন পাঠন শুরু করা হলেও ফের রাজ্যে করোনাগ্রাফ ঊর্ধমুখী হওয়ায় তা বন্ধ করে দেওয়া হয়। মূলত করোনাকালে স্কুল বন্ধ থাকায় অনেকক্ষেত্রেই অনলাইন ক্লাসের ব্যবস্থা করা হয়েছিল। তবে সেই সুযোগ যে সকলের পাওয়া সম্ভব নয় সেকথা বলাই যায়। 

এক নজরে আজকের সমস্ত ব্রেকিং নিউজ

করোনাকালে দীর্ঘদিন ধরে স্কুল কলেজ বন্ধ রাখার সিদ্ধান্তে আখেরে ক্ষতি হচ্ছে পড়ুয়াদেরই। এমন দাবী উঠে এসেছে প্রায়শই। বিশেষ করে প্রান্তিক এলাকার পড়ুয়াদের ক্ষেত্রেই এর প্রভাব পড়ছে সবথেকে বেশী। অনলাইন ক্লাস করা যেহেতু তদের পক্ষে সম্ভব হচ্ছেনা এবং অপরদিকে স্কুল বন্ধ থাকায় পড়াশোনা থেকে তারা বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ছে এবং পিছিয়ে যাচ্ছে অনেকটাই।

আরও পড়ুন -করোনার জেরে আর্থিক বৈষম্য! কেন ভারতে এই আর্থিক সংকট? কি এর নিবারণের উপায়? জানুন সমীক্ষার তথ্য

শুধু পড়াশোনার জন্যই নয় বরং স্কুলের বন্ধুদের সাথে দেখা না হওয়া থেকে শুরু করে নানা কারনেই মানসিক চাপের সৃষ্টি হচ্ছে তাদের। সেই কারনেই বেশ কিছু অভিভাবক থেকে শিক্ষক সকলেই পড়ুয়াদের স্বার্থে স্কুল খুলে দেওয়ার দাবী জানাচ্ছেন। এই পরিস্থিতিতে রাজ্যের বেশ কিছু এলাকায় এদিন কার্যত স্কুলের খোলা মাঠ বা বারান্দাতেও করোনা বিধি মেনে ক্লাস করাতে দেখা গেল। 

খোলা মাঠেই শুরু প্রাইমারি স্কুল - এদিন রাজ্যের বেশ কিছু প্রত্যন্ত স্থানে দেখা গেল শিক্ষকদের উদ্যোগেই শুরু করে দেওয়া হয়েছে পঠন পাঠন। যেখানে ক্লাসরুমের বদলে ব্যবহার করা হচ্ছে স্কুলের খোলা মাঠ বা খোলা বারান্দা। এই প্রসঙ্গে এদিন আনন্দ হন্ডা তথা বঙ্গীয় প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক জানান, স্কুল খুলে দেওয়ার দাবীতে 'চলো স্কুলে পড়াই' কর্মসূচি নেওয়া হয়েছে। যার জেরে এদিন বেশ কিছু প্রাথমিক স্কুলে সমস্ত করোনা বিধি মেনে চতুর্থ শ্রেণীর পড়ুয়াদের নিয়ে ক্লাস করিয়েছেন শিক্ষকেরা। 

আরও পড়ুন -বাংলার ট্যাবলো বিতর্কে নয়া মোড়, মমতার চিঠির জবাব দিলেন রাজনাথ সিং, কি বললেন তিনি? দেখুন সেই চিঠি

তিনি জানান, গত কাল অর্থাৎ সোমবার দিন স্কুলের খোলা বারান্দায় বসিয়েই চতুর্থ শ্রেণীর পড়ুয়াদের এদিন পড়িয়েছেন পূর্ব মেদিনীপুরের কোলাঘাট এবং পশ্চিম মেদিনীপুরের ডেবরার দুই প্রাথমিক স্কুলে। এছাড়াও স্কুলের সামনে ফাঁকা মাঠে সতরঞ্চি বিছিয়ে তার ওপরে বসিয়েও এদিন ক্লাস করান দক্ষিণ ২৪ পরগনার কুলতলির একটি স্কুলের শিক্ষকেরা। এছাড়াও আরো বেশ কিছু জায়গায় সম্পুর্ন দূরত্ব বিধি মেনে এবং মুখে মাস্ক পরিয়েই চলছে ক্লাস। 

আরও পড়ুন -আগামী ২১ জানুয়ারি থেকে হতে চলেছে আবহাওয়ার বড়সড় বদল, এই জেলাগুলি বিশেষ লক্ষণীয়, জানালো মৌসম ভবন

এই প্রসঙ্গে আনন্দ বাবু জানান, গঙ্গাসাগর মেলায় ভীড় হচ্ছে, নির্দিষ্ট সংখ্যক মানুষ নিয়ে বিবাহ সম্পন্ন হচ্ছে, খোলা মাঠে মেলা করা হতে পারলে খোলা স্থানে ক্লাস করানো নিয়ে সমস্যা কোথায়। যেখানে ক্রমেই পড়াশোনা থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে যাচ্ছে এবং পিছিয়ে পড়ছে পড়ুয়ারা সেখানে কেন বন্ধ করে রাখা হচ্ছে স্কুল গুলি। এর পাশাপাশি খুব শীঘ্রই প্রাথমিক স্কুল খোলার দাবীতে শিক্ষা দফতরে স্মারকলিপি জমা দেওয়ার কথাও বলেন তিনি।

আপনি কী এই নিউজগুলি পড়েছেন? পড়ুন আজকের বাছাই করা ব্রেকিং নিউজের আপডেট

রাজনীতি

তথ্য ও প্রযুক্তি

বিনোদন